Search This Blog

Total Pageviews

Saturday, January 5, 2019

king Oedipus - Bangla translation- part- 4 - রাজা ঈডিপাস - বাংলা অনুবাদ - পর্ব ৪

Oedipus and teirasias
king Oedipus - Bangla translation- part- 4 - রাজা ঈডিপাস - বাংলা অনুবাদ - পর্ব ৪ 


১ম পর্ব থেকে পড়া শুরু করুন ঃ ১ম পর্বের লিঙ্ক 
king Oedipus - Bangla translation- Part- 4 - রাজা ঈডিপাস - বাংলা অনুবাদ - পর্ব ৪  ৩য় পর্বের লিঙ্ক

[একটি বালকের হাত ধরে অন্ধ জ্যোতিষী টেরেসিয়াসের প্রবেশ]

ঈডিপাস : টেরেসিয়াস, তুমি তো সবার ভেতরের লুকোনো বিষয়, স্বর্গ আর মর্ত্যের সব গোপন রহস্য সম্পর্কে অবগত, তুমি চোখে না দেখলেও অনুভব করতে পারছ কী ভয়াল প্লেগের মহামারিতে উজাড় হয়ে যাচ্ছে আমাদের রাজ্য। আজকের এই মহাদুর্দিনে তুমিই আমাদের ভরসা। আমরা পাঠিয়েছিলাম দেবতা ফিবাসের কাছে। ফিবাস দূতদের বলে পাঠিয়েছেন এদেশের ভূতপূর্ব রাজা লায়াসের হত্যাকারীকে এ রাজ্য হতে তাড়াতে না পারলে এ ভয়াল মহামারি দূর হবে না। অতএব, টেরেসিয়াস, তুমি তোমার দৈববাণী বলে আমাদের সামনে সত্যি বিষয়ের প্রকাশ ঘটাও, আমার রাজ্য আর আমাকে উদ্ধার করো, আমাদের সকল সহায় সম্পদ আজ তোমারই উপর নির্ভরশীল। সাধ্যানুসারে অন্যকে সহায়তা প্রদান করাটাই মানুষ হিসেবে একজন মানুষের মহত্তর কর্ম।
টেরেসিয়াস : অত্যন্ত দামি কথা, ওহ, কিন্তু কোন বিষয় জানার পর যদি কোন উপকার না হয় তাহলে সে বিষয়টা জানার মতো বেদনাদায়ক আর কিছু হতে পারে না - আমিও এটা জানতাম, কিন্তু হঠাৎ করে--
ঈডিপাস : মনে হয়, আমাদের জন্য কিছুটা উৎসাহের আভাস নিয়ে এসেছ তুমি।
টেরেসিয়াস : আমাকে আমার ঘরে ফেরার অনুমতি দিন। আপনি সহজভাবেই এ দুঃখভার বহন করতে পারবেন, আমিও বহন করে যেতে পারব আমার আপন বেদনাভার।
ঈডিপাস : খুব সাবধান, স্যার, আপনি এমন ভাব প্রদর্শন করছেন, মনে হয় আপনি থিবসের কোন কল্যানকামী বন্ধু নন, তাই অতি সহজেই আমার নির্দেশ অমান্য করছেন।
টেরেসিয়াস : কারণ আমি শুধু দেখছিলাম, আর কথাগুলো শুনছিলাম, আপনি রাগ করবেন বলে নিজেকে কিছু বলা থেকে সংযত রেখেছি।
ঈডিপাস : দেবকুলের দোহাই, যদি আপনি জানেন, তাহলে সেটা প্রকাশ করা থেকে বিরত হবেন না। আপনাকে সবিনয়ে অনুরোধ করছি, আমরা সবাই আপনার কাছে জবাব আশা করছি।
টেরেসিয়াস : আপনারা সবাই প্রতারিত, আমি সেই গোপন বিষয় জানি, প্রকাশ করা যাবে না- বড়োই হৃদয়বিদারক ব্যাপার সেটা।
ঈডিপাস : সেকি! সবকিছু তোমার জানা থাকার পরও তুমি আমাদের নগরীটাকে অনিবার্য ধ্বংসের মাঝে ঠেলে দেবে?
টেরেসিয়াস : আমি আপনাকে দুঃখ দিতে চাই না, আপনি কেন মিছে জেদ করছেন? আমি এটা বলতে পারব না।
ঈডিপাস : কখনো নয়? বড়োই উদ্দত নিচমনা পাজি লোক তুমি। তোমার এ ধরনের বক্তব্যে জড় পাথরে রাগে ফুসে উঠবে। কেন কথা  বলবে না তুমি? কোন কিছুই তোমার একওঁয়েমিকে নোয়াতে পারে না দেখছি।
টেরেসিয়াস : মিছেমিছি আমাকে দোষারোপ করছেন, আপনি বুঝতে পারছেন, আপনি আপনার গৃহ সামলান।
ঈডিপাস : কে তোমার কথা শুনে ক্রুদ্ধ হবে না? তুমি আমাদের এ নগরীর সম্মান বিনষ্ট করছ, একজন সাধুকেও রাগিয়ে দিচ্ছ।
টেরেসিয়াস : ভবিষ্যৎ একাই ক্রমে নিজের প্রকাশ ঘটাবে। আমি শুধু সেই ভবিষ্যটাকে বর্তমানে আমার মধ্যে ঢেকে রাখছি নীরব থেকে।
ঈডিপাস : কী আর হবে এতে, ভবিষ্যৎ বলাটাই তো তোমার কর্ম, অতএব, বলে দাও।
টেরেসিয়াস : এ ব্যাপারে আমি কিছুই বলব না, আপনি যতই ভয়াল ক্রোধে জ্বলে উঠুন না কেন।
ঈডিপাস : আমিও তাহলে আমার কথা বলতে মোটেই দ্বিধা করব না। আমার বিশ্বাস, রাজা লায়াসের হত্যাষড়যন্ত্রে তোমারও হাত আছে, তুমি যেহেতু অন্ধ সেহেতু নিজ হাতে তাকে হত্যা করনি। তুমি চোখে দেখতে পেলে হয়ত নিজেই তাকে হত্যা করতে।
টেরেসিয়াস : আমি আপনাকে সতর্ক করছি; এরপর থেকে আপনি আর কোন বাক্যই উচ্চারণ করবেন না। কোন লোকের সামনে এবং আমার সামনেও নয়-এ রাজ্যটাকে আপনি নোংরামিতে ভরে দিয়েছেন
ঈডিপাস : এটা বলতে তোমার বুক কাপল না? এসব বলার পরও কি তুমি রক্ষা পাবে?
টেরেসিয়াস : আমার সত্যি কথার মাঝেই সে শক্তি নিহিত। আমি তো রক্ষা পেয়েই আছি।
ঈডিপাস : নিজেকে রক্ষা করার এমন দীক্ষা তুমি কোথায় লাভ করেছ?
টেরেসিয়াস : তুমি নিজে, তুমিই আমাকে আমার ইচ্ছার বিরুদ্ধে কথা বলতে বাধ্য করেছ।
ঈডিপাস : কোন কথা, ভালো করে আমাকে বুঝিয়ে বলো।
টেরেসিয়াস : আমার কথার আভাসে তা বুঝতে পারনি। আবার আমাকে কথা বলতে বাধ্য করছ?
ঈডিপাস : না, আমি তোমার কথাগুলো ভালো করে খেয়াল করিনি, আবার বলো।
টেরেসিয়াস : আমি বলছি, তুমি যে হত্যাকারীর সন্ধান করছ তুমি নিজেই সে হত্যাকারী।
ঈডিপাস : তুমি তো এই ভয়াল শব্দটা দুবার উচ্চারণ করেছ।
টেরেসিয়াস : তুমি কি আমার মুখ থেকে আরো কথা বের করতে চাও?
ঈডিপাস : কিন্তু ওসব কথা বলে কোন ফায়দা হবে না।
টেরেসিয়াস : আমি বলছি, তুমি তোমার নিজের অজ্ঞাতে একান্ত আপনজনের সাথে দৈহিক মিলনে লিপ্ত হয়েছ। তুমি নিজেও জান না তোমার ভাগ্যে কী আছে।
ঈডিপাস : তুমি কি মনে কর সারাজীবন এমন নিশ্চিন্তে কথা বলতে থাকবে?
টেরেসিয়াস : অবশ্যই বলব - যদি আমার মাঝে সে শক্তিটা থাকে তাহলে সেই শক্তিবলে কথা বলে যাব।
ঈডিপাস : আশা করি তা পারবে না, কারণ তোমার দৃষ্টিশক্তি শ্রবণশক্তি কোনটাই নেই।
টেরেসিয়াস : কতই না হতভাগা তুমি, অনুধাবন করতে পারছ না, তুমি আমাকে যেমন উপহাস করছ এই লোকেরা সবাই একদিন তোমাকে নিয়ে এরকমই হাসিঠাট্টা করবে।
ঈডিপাস : সীমাহীন রাতের অন্ধকার তোমার চোখ এবং অন্তরাত্মা দুটোকেই আধারে ঢেকে দিয়েছে। আমি এবং আরো সবাই যারা দিনের আলো দেখছে তারা এর পরিচ্ছন্নতা জানে-তারা তোমার কথায় কোন দুঃখ পাবে না।
টেরেসিয়াস : না, আমার দ্বারা তোমার কোন ক্ষতি হবে না, দেবতা আ্যাপোলো নিজেই সেটা প্রকাশ করে তোমার ধ্বংস বয়ে আনবে।
ঈডিপাস : (এতে ক্রেয়নের কোন হাত আছে কি না এটা ভেবে) তুমি যদি এতে যুক্ত না থাক, তাহলে এই প্রতারণার মাঝে কি ক্রেয়নের কোন হাত আছে?
টেরেসিয়াস : না, ক্রেয়নের এতে হাত নেই, নিজেই তুমি তোমার শত্রু
পরের পর্বে যান 


No comments:

Post a Comment

Popular Posts