Search This Blog

Total Pageviews

Saturday, January 5, 2019

king Oedipus- Bangla translation - part- 7 - রাজা ঈডিপাস বাংলা অনুবাদ - পর্ব ৭

king oedipus bangla translation
king Oedipus- Bangla translation - part- 7 - রাজা ঈডিপাস বাংলা অনুবাদ - পর্ব ৭






king Oedipus- Bangla translation - part- 7 - রাজা ঈডিপাস বাংলা অনুবাদ - পর্ব ৭
পর্ব ৭ শুরুঃ
ক্রেয়ন : তুমি কি আমার বোনের স্বামী?
ঈডিপাস : অবশ্যই, জনাব।
ক্রেয়ন : এ রাজ্য শাসনের ব্যাপারে সেও তো তোমার সহকারী।
ঈডিপাস : তার যতটা প্রাপ্য সবই সে আমার কাছ থেকে পায়।
ক্রেয়ন : তোমাদের দুজনের কর্মে আমিও কি একজন সহায়তাকারী নই!
ঈডিপাস : কিন্তু আমি এটা স্বীকার করি না, তুমি একজন চতুর সহায়তাকারী
ক্রেয়ন : কিন্তু আমি এটা মানি না। তুমি এটা গভীরভাবে চিন্তা কর যুক্তি সহকারে বিচার কর। ভেবে দেখ, তুমি যদি কাউকে জীবনের শান্তি পরিত্যাগ করে ভীতি সহকারে রাজ্য শাসন করতে বল, তাহলে সে তা মোটেই চাইবে না। আমি শুধু রাজকর্ম করে যেতে চাই, রাজা হওয়ার কোন ইচ্ছেই আমার নেই। আমার যখন যা প্রয়োজন তুমি সবই আমাকে দিচ্ছ। আমি খুব ভালো আছি। কিন্তু আমাকে রাজ্য শাসন করতে বলা হলে আমাকে এমন সব কর্ম করতে হবে যার কারণে আমার শান্তি হারাম হয়ে যাবে। নিরুপ্রদব রাজকীয় প্রভাবই আমি কামনা করি রাজশক্তি কামনা করিনা। আমি এতটা আহম্মক নই যে, মূল্যহীন সম্মানের প্রতি আগ্রহী হবএখন আমাকে সবাই পছন্দ করে, মঙ্গল কামনা করে আমারতোমার কাছে কেউ কোন আবেদন জানাতে চাইলে তার আগে আমার সহযোগিতা কামনা করে। কারণ সে জানে আমার ইচ্ছের উপরেই তার আবেদনের সাফল্য নির্ভর করছে। তাহলে আমি কেন আমার এই শান্তিপূর্ণ জীবন যাপন পরিহার করে রাজার জীবন বেছে নেব? যারা জ্ঞানী তারা কখনো কারো সাথে বিশ্বাস ঘাতকতা করে না, সত্য এবং মিথ্যের পার্থক্য তারা বোঝে। মোট কথা রাজা হওয়ার ইচ্ছে আমার সেই। এ কর্মটি আমার নিয়মনীতির ভেতরে পড়ে না। আমার কথা সত্যি কি না এটা প্রমাণ করার জন্য পিথিয়ার মন্দিরে গিয়ে জেনে এসো আমি সত্যি দেব বাণীটা এনে দিয়েছি কি না। এরপরও যদি প্রমাণিত হয় যে, আমি জ্যোতিষীর সাথে শলা করেছি তোমার বিপক্ষে তাহলে আমাকে মৃত্যুদণ্ড দেবে। তোমার সাথে একমত হয়ে আমি নিজেকেই দণ্ডিত করব। কিন্তু আমার একটাই আবেদন প্রমান ছাড়া মিথ্যে অপবাদ দ্বারা আমাকে দোষী কোরোনা। কোন ভালো মানুষকে খারাপ এবং খারাপ কাউকে ভালো ভাবাটা মোটেই উচিত নয় অথবা সত্যিকারের বন্ধুকেও সন্দেহের বশে পরিত্যাগ করা ঠিক নয়। কোন মানুষ খারাপ কিংবা অসৎ প্রকৃতির হলে তা এক দিনেই বোঝা যায় কিন্তু সৎ ও নীতিবান কোন মানুষকে বুঝতে হলে সময়ের প্রয়োজন হয়।
কোরাস গায়ক: যথার্থই বলেছেন; যে মানুষ তার অধোগতির বিষয়ে সচেতন থাকে না সে কোন সদুপদেশ গ্রহণ করে না।
ঈডিপাস : যখন কোন গোপন ষড়যন্ত্র করা হয় আমাকে উদ্দেশ্য করে তখন আমাকেও ষড়যন্ত্র করতে হবে তার বিরুদ্ধে। এতে যদি আমি দেরি করে ফেলি তাহলেসেই জয়ী হবে, উদ্দেশ্য সফল হবে তার কিন্তু ক্ষতির মুখোমুখি হব আমি।
ক্রেয়ন : তাহলে কী করতে চাও তুমি, আমাকে নির্বাসন দণ্ড দেবে?
ঈডিপাস : অবশ্যই নয়। আমি তোমার মৃত্যু চাই, নির্বাসন নয়
ক্রেয়ন : কী উপায়ে আমি তোমার প্রতি অসদাচরণ করেছি এটা প্রদর্শন করতে পারবে?
ঈডিপাস : তোমার প্রতি অবিশ্বাস করতে আমাকে বাধ্য করছ।
ক্রেয়ন : কারণ, আমি বুঝতে পারছি তুমি ভুল করছ
ঈডিপাস : আমি জানি, আমি সঠিক।
ক্রেয়ন : তোমার দৃষ্টিতে তা হতে পারে, কিন্তু আমার কাছে নয়।
ঈডিপাস : তুমি একজন দুবৃত্ত ।
ক্রেয়ন : আর তুমি যদি ভ্রান্তির জটাজালে আচ্ছন্ন হয়ে থাক?
ঈডিপাস : রাজাকে অবশ্যই রাজ্য শাসন করতে হবে।
ক্রেয়ন : না, শাসনের নামে অবিচার নয়।
ঈডিপাস : থীবস, নগরী আমার, এর কথা শোন।
ক্রেয়ন : থীবস, কি শুধু তোমার? আমার নয়?
কোরাস গায়ক : মহোদয়গণ, মহোদয়গণ, যথেষ্ট হয়েছে, রানী জোকাস্তা এখানে আসছেন। তার সহযোগিতায় আপনারা এই ঝগড়া থামিয়ে ফেলুন।
[প্রাসাদ থেকে বের হয়ে রানী জোকাস্তার প্রবেশ]
জোকাস্তা : এইসব উঁচুলয়ের বাদানুবাদের মানেটা কী, তোমরা কি ঝগড়াটে মানুষ? রাজ্যের এই দুঃসময়ে তোমাদের একান্ত ব্যক্তিগত বিষয় নিয়ে বিবাদ করতে লজ্জাবোধ করছ নাতুমি ভেতর এসো স্বামী আমার, ক্রেয়ন, তুমি তোমার নিজের গৃহে যাও। ক্রেয়ন, এটা নিয়ে তুমি কোন দুঃখ কর না।
ক্রেয়ন : এটাই যথেষ্ট নয় বোন আমার, তোমার স্বামী ঈডিপাস আমার প্রতি ভয়ানক অবিচার করেছে, সে আমাকে নির্বাসন দেবে রাজ্য থেকে, তা না হলে হত্যা করবে।
ঈডিপাস : এটাই সত্যি। আমি জানতে পেরেছি সে আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত ।
ক্রেয়ন : আমার প্রতি এই অভিযোগ যদি সত্যি বলে প্রমাণিত হয় তাহলে যেন আমার উপরে দৈব অভিশাপ নেমে আসে আর তাতেই যেন আমার মৃত্যু ঘটে।
জোকাস্তা : মহান ঈশ্বরের নামে ও যে শপথ বাক্য করছে তাতে বিশ্বাস রো ঈডিপাস। আমার এবং অন্যান্য বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতির খাতিরে এটা মেনে নাও।
কোরাস গায়ক : প্রার্থনা করছি, মহান রাজা আমাদের প্রার্থনা মেনে নিন, দয়াপরবশ হয়ে এটা মানুন।
ঈডিপাস : আমি কেন এটা মেনে নেব?
কোরাস গায়ক : যে পূর্বে কখনো আহম্মকি করেনি, যেহেতু জোরের সাথে শপথ করছে, তার প্রতি শ্রদ্ধা দেখান।
ঈডিপাস : তুমি যা প্রার্থনা করছ তার মানেটা জান?
কোরাস গায়ক : আমরা জানি।
ঈডিপাস : তা হলে সবটুকু বলো।
কোরাস গায়ক : আমি বলতে চাই, কোন প্রমাণ বিহীন গুজবে বিশ্বাস স্থাপন করে একজন শপথকারী বিশ্বস্ত বন্ধুকে মিথ্যা অভিযোগে অভিযুক্ত করাটা অন্যায়।
ঈডিপাস : তাহলে এটা মনে রেখ, এই অনুরোধ করার জন্য হয় তোমাকে দেশ ছাড়তে হবে না হয় মরতে হবে।
কোরাস গায়ক : সূর্যদেবের নামে শপথ করে বলছি, আমি নির্দোষআমার এই অনুরোধের পশ্চাতে যদি কোন দুরভিসন্ধি থাকে তাহলে একেবারে নিঃসহায় অবস্থায় আমার মৃত্যু হবেআমি রাজ্যের এই বিশৃংখল পরিস্থিতি দর্শন করে আর আপনাদের আগামী দুরবস্থার কথা ভেবেই এটা বলছি ।
ঈডিপাস : ঠিক আছে, যেতে দাও ওকে। এর জন্য যদি আমার পরে ধ্বংস কিংবা নির্বাসন দণ্ড নেমে আসে আসুক। ওর দিকে তাকিয়ে নয়, তোমার মুখপানে চেয়ে আর তোমার কথা শুনেই আমার মাঝে দয়ার উদ্রেক হচ্ছে। ও যেখানেই থাকুক না কেন, আমার কাছে সে ঘূণার পাত্র হয়েই থাকবে
ক্রেয়ন : রাগের বশবর্তী হয়ে তুমি আমার উপরে যে দোষের বোঝা চাপিয়ে দিয়েছ সে রাগ এখনো কমেনি তোমার। এই ক্রোধের শক্তি এতটাই ভয়ঙ্কর যে সেটা তুমি নিজেই সইতে পারবে না।
ঈডিপাস : তুমি এখান থেকে সরে গিয়েও আমাকে নিরুপদ্রবে থাকতে দেবে না?
ক্রেয়ন : আমি যাচ্ছি; আমি শুধু তোমারই কাছ থেকে ন্যায্য বিচার পেলাম না। 
[প্রস্থান]



No comments:

Post a Comment

Popular Posts