Search This Blog

Total Pageviews

Monday, April 8, 2019

Life and Works of Alexander Pope in Bangla - অ্যালেক্সান্ডার পোপের জীবনী ও কর্মসমূহ




আলেকজান্ডার পোপ -  Life and works of Alexander Pope

রেপ অফ দ্যা লোক
১৬৮৮ সালের ২১ মে লন্ডনে কবি আলেকজান্ডার পোপের জন্ম তার বাবা পেশায় ছিলেন ব্যবসায়ী এবং ক্যাথলিক ধর্মমতে বিশ্বাসী। আলেকজান্ডার পোপও এই ধর্মীয় আবহেই মানুষ হয়েছিলেন। আর সে সময়ে রোমান ক্যাথলিক সম্প্রদায় সামাজিক মর্যাদা রাষ্ট্রীয় কোনো পৃষ্ঠপোষকতা পেত না, যার জন্য পোপের পক্ষে প্রথম শ্রেণীর নামকরা কোনো বিদ্যালয়ে অধ্যয়ন করা সম্ভব হয়নি। স্থানীয় ধর্মযাজক আর গৃহশিক্ষকদের কাছ থেকেই তিনি শিক্ষা লাভ করেছিলেন। যুবক পোপ খুবই কঠিন রোগে আক্রান্ত হয়ে শারীরিক দিক থেকে দুর্বল হয়ে পড়েছিলেন অক্ষম শরীর আর খিটখিটে মেজাজ ছিল তার পোপ অসাধারণ প্রতিভাবান না হলেও তিনি ল্যাটিন ভাষা জানতেন, গ্রিক ভাষায়ও তার মোটামুটি দখল ছিল। ১৭০৪ সালের মাঝেই পোপ বেশ কিছু কবিতা কাব্য রচনা করেছিলেন। আর লেখালেখির সুবাদে তিনি সে সময়ের বিখ্যাত সাহিত্যশিল্পী এডিসন, স্টিল জোনাথন সুইফটের সাহচর্য্য লাভ করেছিলেন দের সাহচর্য্য তাকে সাহিত্যক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠার সুযোগ এনে দেয়। পোপ তাঁর জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত বিরামহীন গতিতে লেখনী চালনা করেছেন। অত্যধিক পরিশ্রমে তার শরীর আরো দুর্বল হয়ে পড়ে, যার ফলে ১৭৪৪ সালের ৩০ মে মাত্র ৫৬ বছর বয়সে পরলোক গমন করেন এই কবি।
পোপের চিন্তাচেতনা ছিল স্ববিরোধিতাপূর্ণ। তার জীবনে তিনি বঞ্চনা অবহেলাও যেমন পেয়েছেন আবার অনেকের কাছ থেকে উৎসাহ সমবেদনাও লাভ করেছেন। কারণে কেউ কেউ তাঁকে বলেছেন মহৎ এবং অমায়িক স্বভাবের মানুষ, কেউ কেউ আবার তাঁকে অসম্ভব. অহঙ্কারী, নিচ স্বভাব এবং মন্দভাষী বলেও আখ্যায়িত করেছেন। প্রায়ই নানা ব্যঙ্গবিদ্রুপের কষাঘাত এসে পড়ত তাঁর ওপরে। অপমানিত, অবহেলিত, সমাজ চ্যুত পোপের মাঝে জমে ওঠে তীব্র ঘৃণা আর এই ব্যক্তিগত ক্ষোভ আর ঘৃণাই তার কাব্যজগৎকে পুরোপুরি অধিকার করে বসে। তবে তার দেখার দৃষ্টি ছিল স্বচ্ছ সমাজে তিনি যা কিছু প্রত্যক্ষ করেছেন তা- নানা যুক্তির দ্বারা তিনি তার সাহিত্যকর্মে পরিবেশন করেছেন। বিরুদ্ধ পক্ষের বিরুদ্ধে নিজের মতকে খাড়া করার জন্যই তিনি যুক্তির আশ্রয় নিয়েছিলেন।
পোপের রচনাসমূহকে মোটামুটি তিনটি পর্বে ভাগ করা যায়। প্রথম পর্ব ১৭০৩ থেকে ১৭১১ সালের মাঝে সীমাবদ্ধ সে সময়টা রানী অ্যানির রাজত্ব কাল। সময়ে তিনি রচনা করেন Pastorals (১৭০৩) Windsor Forest (১৭১৩), Essay on Criticism (১৭১১), The Rape of the lock (দি রেপ অব দি লক-১৭১২) দ্বিতীয় পর্ব ১৭১৫ থেকে ১৭২৫ সালের মধ্যে; তখন রাজা পঞ্চম জর্জের রাজত্বকাল, সময় তিনি হোমারের ইলিয়াড ওডিসি কাব্য অনুবাদ করেছিলেন।
তৃতীয় পর্ব ১৭২৬ থেকে ১৭২৫ সাল পর্যন্ত। সময়ে তিনি ব্যঙ্গ বিদ্রুপাত্মক রচনাসমূহ রচনা করেছেন। সে সময়ে প্রকাশিত হয় তার The Dunciad, Moral Essays, Essay on Man Prologue to the Satires ইত্যাদি
পোপ তাঁর কাব্যচর্চা শুরু করেছিলেন Pastorals Poems অর্থাৎ রাখালিয়া কাব্য রচনার মাধ্যমে। মূলত, ক্লাসিক কবিদের অনুসরণে কাব্য রচনা করাই তাঁর প্রধান উদ্দেশ্য ছিল। আর এসব রচনাকর্মে তিনি বেশ দক্ষতার সাথে ভার্জিলকে অনুসরণ করেছিলেন।
তাঁর Essay on Criticism প্রকাশের সাথে তার খ্যাতি সর্বত্র ছড়িয়ে পড়ে। এটি রচনা করে তিনি সে সময়ের কাব্য চর্চাকারী কাব্য রসিক গণের মধ্যে কাব্য রচনার নানা নিয়মনীতি কৌশল বিষয়ে আগ্রহ জাগাতে সক্ষম হয়েছিলেন। এক্ষেত্রে তিনি হোরেস, কুইনটিলিয়ন এবং বোয়ালুকে অনুসরণ করেছিলেন তবে তিনি তার The Rape of the lock কাব্যের কারণেই বেশি খ্যাতিমান হয়ে আছেন পাঠকসমাজে। পোপ মক হিরোয়িক(Mock Heroic) রীতিতে কাব্যটি রচনা করেছেন।
পোপের ইচ্ছে ছিল দার্শনিক হওয়ার আর এরই অনুপ্রেরণায় তিনি এসে অন ম্যান (Essay on Man) রচনা করেন। তবে তাঁর রচনাটি এতটা সফলতা পায়নি। দার্শনিক চিন্তাচেতনায় তিনি ব্যর্থ হলেও সাহিত্যশিল্পী হিসেবে তিনি অসাধারণ প্রতিভার পরিচয় রাখেন। তার চিন্তাচেতনার জগৎ ব্যঙ্গবিদ্রপের অলোকচ্ছটায় উজ্জ্বল। ব্যঙ্গবিদ্রুপাত্ব এই রচনা দ্বারা তিনি আজো পাঠকসমাজে চিরজাগরূক হয়ে আছেন।
কবি আলেকজান্ডার পোপের তখন চব্বিশ বছর পূর্তি হয়েছে। সে সময়েই তিনি তার বিখ্যাত ব্যঙ্গ কাব্য The Rape of the lock -এর প্রথম দুটো সর্গ রচনা করেছেন এবং এটি ১৭৭২ সালে প্রকাশিত হয়। সম্মানীস্বরূপ তিনি প্রকাশকের কাছ থেকে সাত পাউন্ড লাভ করেন। প্রকাশক বার্নার্ড লিনটটের সাথে পোপের আরো ছয়টি কবিতা একত্রিত করে প্রকাশ করেন। ১৭১৩ সালে কবি আলেকজান্ডার পোপ এর সাথে আরো কিছু বিষয় যোগ করে দেন, বিশেষ করে অলৌকিক জীব, পরী, এবং পাতালপুরীর যক্ষসমূহ যোগ করেন ওম্বার তাস খেলার বিষয়টি এসব যোগ করে এটি আবার ১৭১৪ সালের মার্চ প্রকাশিত হয়, আর জন্য প্রকাশক পোপকে ফের পনেরো পাউন্ড সম্মানী প্রদান করেন। মাত্র চার দিনের মধ্যে এই কাব্যের প্রায় তিন হাজার - কপি বিক্রি হয়ে যায়। এটি এতটাই জনপ্রিয়তা পায় যে, সে বছরই ১৭ জুলাই এটির তৃতীয় সংস্করণ প্রকাশিত হয়। এর ফলে পোপ বেশ আর্থিক সাফল্য লাভ করেন।
কর্মের পাশাপাশি পোপ সে সময়ে গ্রিক কবি হোমারের ইলিয়াড মহাকাব্যের অনুবাদ করতে থাকেন। এসব কর্ম পোপকে তখন সাহিত্য জগতে রীতিমতো খ্যাতিমান করে তোলে এবং অন্য কবিদের কাছে তিনি তখন রীতিমতো ঈর্ষার পাত্র। ইলিয়াড অনুবাদকর্মের পাশাপাশি পোপ তার দি রেপ অব দি লক কাব্যের পরিমার্জনকার্য সম্পাদন করতে থাকেন। ১৭১৪ সালে দি রেপ অব দি লক-এর পরিমার্জিত বর্ধিত সংস্করণ বাবদ প্রকাশকের সাথে দুশো গিনি সম্মানীতে চুক্তিপদ্ধ হন। পরবর্তীকালে পোপ তাঁর কাজ বাবদ প্রকাশকের কাছ থেকে সে সময় প্রায় আশি হাজার পাউন্ড সম্মানী লাভ করেন। এরপর তিনি হোমারের ওডিসির অনুবাদে হাত দেন। এসব কাজ তাকে আর্থিক দিক থেকে রীতিমতো সম্পদশালী করে তোলে।

সামাজিক দিক থেকে পোপ একেবারেই একা ছিলেন বলা চলে। লেখালেখি ছাড়া সে সময়ে পোপের জীবিকার অন্য কোনো সংস্থান ছিল না। তার পিতা ছিলেন খাদিবস্ত্রের ব্যবসায়ী। সৎ ব্যবসায়ী বলতে যা বোঝায় তিনি তাই ছিলেন। হল্যান্ডে তিনি তার কাপড়ের পাইকারি ব্যবসা পরিচালনা করতেন। ১৭০০ সালের দিকে তার পিতা বস্ত্রের ব্যবসায় ইস্তফা প্রদান করেন এবং ব্যবসা হস্তান্তর করে যে টাকাপয়সা পেয়েছিলেন তাই নিয়ে উইন্ডসর ফরেস্টে চলে আসেন বসবাস করার জন্য। পোপ তার পরিবার হতে উত্তরাধিকার সূত্রে কিছু প্রাপ্তির আশা করেননি কখনো। তিনি তার নিজের অর্জিত অর্থেই জীবন চালিত করতে চেয়েছেন। পোপের পরিবার ছিল ক্যাথলিক সম্প্রদায়ভুক্ত। জন্য তাকে নানা প্রতিকূলতার মুখোমুখি হতে হয়েছে সমাজে। ক্যাথলিক সম্প্রদায়ের কোনো শিক্ষক সে সময়ে কোনো বিদ্যালয়ে শিক্ষা দান করার অনুমতি পেত না। আইনে উচ্চ শিক্ষা অর্জন করে বিচারালয়ে ওকালতি করার অনুমতি পেত না। ক্যাথলিক সম্প্রদায়ের শিক্ষার্থীরা অক্সফোর্ড, ক্যামবিজে ভর্তির অনুমতি পেত না। এমনকি পাঁচ পাউন্ডের বেশি মূল্যে ঘোড়া ক্রয় করার অনুমতি পেত না। সর্বক্ষেত্রে তাদের ডবল ট্যাক্স প্রদান করতে হত। সে সময়ে ক্যাথলিকদের সম্পর্কে এমন আইন প্রণয়ন করা হয়েছিল যে, তারা লন্ডন শহরের দশ মাইলের মধ্যে অবস্থান করতে পারত না। জমি ক্রুয়-বিক্রয়ের ক্ষেত্রেও তাদের জন্য নানা বিধিনিষেধ ছিল। যার কারণে পোপের পিতা বিনফিল্ডে জমি ক্রয় করেছিলেন তার প্রোটেস্ট্যান্ট মতাবলম্বী ভাগিনার নামে। 'দি রেপ অব দি লক' প্রকাশিত হওয়ার পর পোপের চারপাশে তাঁর নানা শত্রু তৈরি হয়ে যায়। কিন্তু পোপের এতে কোনো সমস্যা দেখা দেয়নি, কারণ সে সময় তিনি অর্থনৈতিক দিক থেকে বেশ সচ্ছল অবস্থায় ছিলেন।

দ্যা রেপ অফ দ্যা লক এর সম্পূর্ণ বাংলা অনুবাদ

২১) আসলে তোমাদের জন্য আল্লাহর রসূলের মধ্যে ছিল একটি উত্তম আদর্শ  এমন প্রত্যেক ব্যক্তির জন্য যে আল্লাহ ও শেষ দিনের আকাঙ্ক্ষী এবং বেশী করে আল্লাহকে স্মরণ করে৷(Sura Al - Ahzab - 21)

No comments:

Post a Comment

Popular Posts